উখিয়ায় পানের বরজে হতশার জোয়ার চাষিদের মাথায় হাত

প্রকাশিত: ৯:২৫ পূর্বাহ্ণ, জুন ১৬, ২০২০, 637 জন দেখেছেন

উখিয়া উপজেলা প্রতিনিধি:বাংলাদেশ কৃষিপ্রধান দেশ এদেশে শতকরা ৭৫ ভাগ লোক গ্রামে বাস করে বাংলাদেশের গ্রাম এলাকায় ৫৯.৮৪% লোকের এবং শহর এলাকায় ১০.৮১% লোকের কৃষিখামার রয়েছে।

মোট দেশজ উৎপাদন তথা জিডিপিতে কৃষিখাতের অবদান ১৯.১% এবং কৃষিখাতের মাধ্যমে ৪৮.১% মানুষের কর্মসংস্থান তৈরি হচ্ছে।

ধান,পাট,তুলা,আখ,ফুল ও রেশমগুটির চাষসহ বাগান সম্প্রসারণ,মাছ চাষ,সবজি,পশুসম্পদ উন্নয়ন, ও

পান চাষে জনগনের একটা বিশাল অংশ তাদের জীবনধারণের জন্য পান চাষের উপর নির্ভর করে।

বাংলাদেশের প্রতিটা অঞ্চলের ন্যায় কক্সবাজারের দক্ষিণাঞ্চলে উখিয়ায় পান চাষে হতাশার জোয়ার বয়ে যাচ্ছে মহামারী করোনা ভাইরাসে দীর্ঘদিন লকডাউন থাকায়। তারা ঠিক ভাবে পান বাজারে ওঠাতে পারছে না পারলেও তাদের চাহিদা অনুযায়ী দাম পাচ্ছে না বলে জানায়।

পান চাষিরা তাদের এই হতশায় সংসার চালাতে হিমশিম খেতে হচ্ছে। কোন কোন পানের বরজে দেখা যায় জমিয়ে থাকা পান আর পান। আবার অনেকই হতাশায় ছেড়ে দিয়েছে অনেকে পানের চাষ।

এমন হতশার জোয়ারে বাংলাদেশের পল্লী গ্রামে কৃষি থেকে মন কে উধাও করে দিচ্ছে অনেক কৃষক প্রেমিক।

পান চাষিদের মধ্যে এমন লোক ও রয়েছে যাদের একটা পানের বরজ নিয়ে সংসারের জীবিকা নির্বাহ করে আজ তাদের মধ্যে বসবাস করছে মহামারী করোনাভাইরাস ও হতশার জোয়ার!

এমন পরিস্থিতি শিকারে সরকারের অনুমোদিত কোন ত্রাণ সামগ্রী পাওয়ার অবদান রাখে বটে কষ্টে জীবন যাপন করা অনেক খেটে খাওয়া মানুষের দাবি।