চান্দিনায় অগ্নিকান্ডে ৭টি ঘর ভষ্মিভূত ২২ লাখ টাকা ক্ষতির আশঙ্কা

প্রকাশিত: ৩:৫৯ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ৩, ২০২০, 710 জন দেখেছেন

আলিফ মাহমুদ কায়সার
কুমিল্লা প্রতিনিধিঃ

কুমিল্লার চান্দিনায় ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে ৪টি পরিবারের ৭টি ঘর ভষ্মিভূত হয়েছে। এতে প্রায় ২২ লাখ টাকার ক্ষয়-ক্ষতি হয় বলে দাবী করে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবার। তবে এতে কোন হতাহত হয়নি।

সোমবার (৩ ফেব্রুয়ারী) দুপুর ২টায় উপজেলার বাড়েরা ইউনিয়নের টাটেরা গ্রামের এ ঘটনা ঘটে। প্রায় দেড় ঘন্টা চেষ্টার পর বিকাল সাড়ে ৩টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে।

ততোক্ষণে মোসলেহ উদ্দিনের ১টি বসত ঘর, চাঁন মিয়ার ১টি বসত ঘর, কানু মিয়ার ১টি বসত ঘর ১টি রান্না ঘর, সফিকুল ইসলাম এর ১টি বসত ঘর, ১টি রান্না ঘর ও ১টি গোয়াল ঘর পুড়ে যায়।

প্রত্যক্ষদর্শী গৃহবধূ আকলিমা জানান, সোমবার দুপুর ২টার দিকে মোসলেহ উদ্দিনের বসত ঘর থেকে আগুনের সূত্রপাত ঘটে। মুহুর্তের মধ্যে পুরো ঘরে আগুন জ্বলতে শুরু করে। আগুনের লেলিহান শিখা একে একে আশ-পাশের আরও ৬টি ঘরে ছড়িয়ে পড়ে। খবর পেয়ে চান্দিনা ফায়ার সার্ভিসের একটি ইউনিট এসে স্থানীয়দের সহযোগিতায় আগুন নিয়ন্ত্রণ করে।

স্থানীয় বাসিন্দা হাজী আলফু মিয়া জানান- অগ্নিকান্ডে ওই চার পরিবারের ৭টি ঘর, নগদ টাকা, ফার্ণিচার সহ সকল মালামাল পুড়ে ছাঁই। এতে মোসলেহ উদ্দিনের অন্তত ৩ লাখ টাকা, চাঁন মিয়ার অন্তত আড়াই লাখ টাকা, কানু মিয়ার অন্তত ১২ লাখ টাকা এবং সফিকুল ইসলাম এর ৫ লাখ টাকার ক্ষতি হয়।

চান্দিনা ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন মাস্টার সফিক উদ্দিন মুন্সি বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন- প্রাথমিক তদন্তে বৈদ্যুতিক সক সার্টিক থেকে আগুনের সূত্রপাত ঘটেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

চান্দিনা উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) স্নেহাশীষ দাশ জানান- বিষয়টি আমরা জেনেছি। আগামীকাল (মঙ্গলবার) সকালে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারের মাঝে জরুরী ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হবে।