গোলাপগঞ্জে রাস্তা সংস্কারের দাবিতে স্মারকলিপি

প্রকাশিত: ১:১৪ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২৮, ২০২২, 84 জন দেখেছেন

গোলাপগঞ্জ প্রতিনিধি, সিলেট : সিলেটের গোলাপগঞ্জে বাদেপাশা ইউনিয়নের উত্তর আলমপুর হতে মাসুরা গ্রামের খুশিদের খেয়াঘাট পর্যন্ত ৩ কিলোমিটার রাস্তা সংস্কারের দাবিতে স্মারক লিপি প্রদান করা হয়েছে।

রোবববার দুপুরে গোলাপগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মঞ্জুর কাদির শাফি চৌধুরী এলিমের কাছে এ স্মারকলিপি প্রদান করেন এলাকাবাসী।

স্মারকলিপিতে এলাকাবাসী উল্লেখ করেন যে, উপজেলার ১০নং উত্তর বাদেপাশা ইউনিয়নের আওতাধীন উত্তর আলমপুর, কেওটকোনা, দক্ষিণ আলমপুর, কোনাগাঁও, কুলিয়াসহ কয়েকটি গ্রামের একমাত্র যোগাযোগের রাস্তা আজ প্রায় বিলুপ্ত হওয়ার উপক্রম। রাস্তাটি উত্তর আলমপুর থেকে ভাদেশ্বর ইউনিয়নের আওতাধীন মাসুরা গ্রামের খুশীদের খেয়াঘাট হয়ে ভাদেশ্বর মোকাম বাজারের সাথে সংযুক্ত হয়েছে। ওই রাস্তার উত্তর পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া কুশিয়ারা নদীর পশ্চিম পার থেকে শুরু রাস্তার পার্শ্ববর্তী খাল ভাদেশ্বর ইউনিয়নের আওতাধীন কুড়া নদীর সাথে মিলিত হয়েছে। বর্ষা মৌসুমে খালের পানির স্রোতের কারণে রাস্তাটি ভাঙতে ভাঙতে প্রায় ৭৫ ভাগ খালের পেটে বিলীন হয়ে গেছে। এতে এলাকাবাসীর একমাত্র যোগাযোগের রাস্তাটি ব্যবহারের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে।

স্মারকলিপিতে আরো উল্লেখ করা হয়, এই রাস্তা দিয়ে পার্শ্ববর্তী কুশিয়ারা নদীর পূর্ব তীরে রাকুয়ার বাজারে কুশিয়ারা পুলিশ তদন্ত কেন্দ্র, ১নং বাগলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, মফজ্জিল আলী উচ্চ বিদ্যালয়, কুশিয়ারা ডিগ্রি কলেজে যেতে হয়। বৃহত্তর বাগলা, কেওটকোনা, বাদেপাশা, দক্ষিণ আলমপুর, সুপাটেকসহ কয়েকটি গ্রামের মানুষের শহরের যাতায়াতের একমাত্র মাধ্যম এই রাস্তাটি।

এছাড়াও ওই রাস্তাটি ভাদেশ্বর মডেল মাদ্রাসা, ভাদেশ্বর হাফিজিয়া দাখিল মাদ্রাসা, ভাদ্বেশর নাছির উদ্দীন স্কুল অ্যান্ড কলেজ, ভাদেশ্বর মহিলা কলেজসহ অন্যান্য প্রতিষ্ঠানে যাতায়াতের একমাত্র অবলম্বন। রাস্তাটি চলাচলের অনুপযোগী হওয়ায় আজ ছাত্র-ছাত্রী সহ সাধারণ জনগণ চরম দুর্ভোগের শিকার। যে রাস্তা দিয়ে ৬/৭ বছর পূর্বে সিএনজি অটোরিক্সা দিয়ে যাত্রী চলাচল করতো, আজ ওই রাস্তা দিয়ে পায়ে হেঁটে চলাও দুষ্কর হয়ে পড়েছে। বর্তমান সরকারের সময় উপজেলার সবকটি রাস্তা সংস্কার হলেও উত্তর আলমপুর রাস্তাটি সংস্কার হয়নি। এই রাস্তাটি সংস্কারের জন্য কয়েকবার এলাকাবাসী মানববন্ধন সহ বিভিন্ন কর্মসূচী পালন করে আসছে। রাস্তা নিয়ে এলাকার মানুষের মধ্যে চাপা ক্ষোভ বিরাজ করছে। অবিলম্বে রাস্তাটি সংস্কার করা না হলে একদিন রাস্তাহারা হয়ে যাবে কয়েকটি গ্রামের লোকজন। তাদের প্রাণের দাবি রাস্তাটি সংস্কার করে চলাচলের পথ সুগম করা।

বৃহত্তর এলাকার মানুষের কথা চিন্তা করে গোলাপগঞ্জ উপজেলার উত্তর আলমপুর হতে মাসুরা গ্রামের খুশীদের খেয়াঘাট পর্যন্ত রাস্তাটি সংস্কার করে জনসাধারণের নিরাপদ চলাচলের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণে দাবি জানান এলাকাবাসী।

স্মারকলিপি প্রদানকালে উপস্থিত ছিলেন এলাকাবাসীর পক্ষের হাফিজ গৌছ উদ্দিন, সাকের উদ্দিন, সালেহ আহমদ।