তানোরে বিষপানে প্রেমিকার আত্মহত্যা, প্রেমিক গ্রেপ্তার

প্রকাশিত: ৬:১৯ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ২০, ২০২২, 67 জন দেখেছেন

তানোর (রাজশাহী) প্রতিনিধিঃ রাজশাহীর তানোরে বিয়ে করতে রাজি না হওয়ায় বিষপানে আত্নহত্যা করেছেন এক প্রেমিকা।

ওই ছাত্রীর নাম রাবিয়া খাতুন (১৬)। সে সালবাড়ি গ্রামের দুখু মন্ডলের কন্যা। সে সালবাড়ি গ্রামের দুখু মন্ডলের কন্যা ও বনগাঁ উচ্চ বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেনীর ছাত্রী।

এঘটনায় নিহতের পিতা বাদি হয়ে আত্নহত্যার প্ররোচনার অভিযোগে প্রেমিককে আসামী করে তানোর থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।

ওই মামলার আসামী প্রেমিক চৈরখের গ্রামের আব্দুর রহিমের পুত্র ইমন (২০) কে গ্রেপ্তার করেছে তানোর থানা পুলিশ।

নিহতের পরিবার ও পুলিশ ও সুত্রে জানা গেছে, দীর্ঘদিন ধরে ওই ছাত্রীর প্রেমের সম্পর্ক চলে আসছিলো। মঙ্গলবার ওই ছাত্রীর পরিবারের কাছে তাদের প্রেমের বিষয়টি প্রকাশ পেয়ে যায়। এসময় ওই ছাত্রীকে তার বাবা মা তার প্রেমিকের সাথে বিয়ে দেয়ার ঘোষনা দিয়ে প্রেমিক ইমনকে বিয়ের বিষয়টি জানাতে বলেন। সন্ধ্যায় প্রেমিকা তার প্রেমিককে বিয়ের বিষয়টি মোবাইল ফোনে জানালে প্রেমিক তার প্রেমিকাকে বিয়ে করতে অপারগতা জানান।এরই সুত্র ধরে রাত সাড়ে ১০ টার দিকে প্রেমিকা তার প্রেমিকের উপর অভিমান করে নিজ বাড়িতেই কিটনাশক পান করেন। এসময় নিজ ঘরে ওই ছাত্রীকে ছটফট করতে দেখে তার বাবা মা কি হয়েছে জানতে চাইলে ওই ছাত্রী জানায় যে সে বিষপানে করেছেন। পরে তার বাবা মা ওই ছাত্রীকে তানোর উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নেয়ার পথে রাত ১ টার দিকে সমাসপুর নামক স্থানে ওই ছাত্রীর মৃত্যু হয়।

তানোর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) কামরুজ্জামান মিয়া বলেন, নিহতের লাম উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে প্রেরন করা হয়েছে।তিনি বলেন নিহতের পিতার মামলায় প্রেমিক ইমনকে গ্রেপ্তার করে থানা হাজতে রাখা হয়েছে বৃহস্পতিবার তাকে আদালতে প্রেরণ করা হবে।