বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মানে গোলাপগঞ্জ থানায় ‘বীর চেয়ার’ স্থাপন

প্রকাশিত: ৪:৪২ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ৪, ২০২২, 100 জন দেখেছেন

নিজস্ব প্রতিবেদক, সিলেট : জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মানিত করতে ব্যতিক্রমী উদ্যোগ নিয়েছে সিলেটের পুলিশ প্রশাসন। জেলার ১১টি থানা ও পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে ‌‘বীর মুক্তিযোদ্ধার আসন’ নামাঙ্কিত সংরক্ষিত আসন ব্যবস্থা চালু করেছে। এখন থেকে বীর মুক্তিযোদ্ধারা পুলিশের যেকোনো সেবা নিতে থানায় গেলে নির্ধারিত আসনে বসবেন।

রোববার (২ জানুয়ারি) সকালে সিলেটের পুলিশ সুপার ফরিদ উদ্দিন পিপিএম এর নির্দেশে সিলেট জেলার অন্যান্য থানার মতো গোলাপগঞ্জ মডেল থানায় স্থায়ীভাবে মহান মুক্তিযুদ্ধের সূর্য সন্তান বীর মুক্তিযোদ্ধাদের স্থায়ীভাবে বসার জন্য ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার কার্যালয়ে একটি “বীর চেয়ার” স্থাপন করা হয়।

সোমবার (৩ জানুয়ারি) থেকে বীর মুক্তিযোদ্ধারা থানায় এসে নির্ধারিত চেয়ারে বসতে পারছেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন গোলাপগঞ্জ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ হারুনুর রশীদ চৌধুরী, এসআই ফয়জুল করিম, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার আলহাজ্ব শফিকুর রহমান।

উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার আলহাজ্ব শফিকুর রহমান বলেন,’ মুক্তিযুদ্ধাদের এরকম সম্মান প্রশংসনীয়। থানায় এসে মুক্তিযুদ্ধারা সংরক্ষিত চেয়ারে বসতে পারবেন। ভাবতেই আনন্দ লাগে। এমন উদ্যোগ গ্রহণ করা পুলিশ প্রশাসনকে ধন্যবাদ জানাই।’

গোলাপগঞ্জ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ হারুনুর রশীদ চৌধুরী বলেন, ‘জাতির সূর্য সন্তানদের ঋণ তো কোন ভাবে শোধ করার নয়। মাননীয় পুলিশ সুপার ফরিদ উদ্দীন পিপিএম মহোদয়ের নেতৃত্বে বীর মুক্তিযোদ্ধোর সূর্য সন্তানদের সম্মানে একটি বিশেষ ক্ষেত্র তৈরী করে দিয়েছে। আমি সহ আমার থানার সকল অফিসারগণ গর্বিত, সিলেট পুলিশ সুপার ফরিদ উদ্দিন (পিপিএম) স্যারের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি।