রাজারহাটে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে শুকনা খাবার বিতরণ

প্রকাশিত: ৮:২৬ পূর্বাহ্ণ, অক্টোবর ২১, ২০২১, 286 জন দেখেছেন

মোস্তফা কামাল, রাজারহাট (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি: কুড়িগ্রামের রাজারহাট উপজেলায় দুই দিনের টানা বৃষ্টির সঙ্গে ভারতের পাহাড়ী ঢলে নেমে আসা পানির তীব্র স্রোতে নদ-নদীর পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে।

শুধু নিম্নাঞ্চল নয় কুড়িগ্রামের রাজারহাট উপজেলার বিদ্যানন্দ ইউনিয়ন সহ বেশ কয়েকটি ইউনিয়নের গ্রামও পানিতে ডুবে গেছে। এ সময় বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে শুকনা খাবার বিতরণ করা হয়।

বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) সকালে হাফেজ মোঃ এরশাদুল হক এর নিজ উদ্যেগে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত ৩০০টি পরিবারের মধ্যে শুকনা খাবার বিতরণ করেন। ক্ষতিগ্রস্ত প্রত্যেক পরিবারকে ১ কেজি মুড়ি,৫০০গ্রাম চিড়া ও গুড় দেওয়া হয়।

হাফেজ মোঃ এরশাদুল হক বলেন, বছর জুড়ে যে পরিমাণ বৃষ্টিপাত হওয়ার কথা। সে পরিমাণ বৃষ্টি দু’দিনেই হয়েছে কুড়িগ্রামের রাজারহাটে। অতি বৃষ্টির কারণে রাজারহাটের বিদ্যানন্দ ইউনিয়নে ক্ষয়ক্ষতি বেশি হয়েছে। বহু ঘরবাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। তবে এখন পর্যন্ত কোন সহযোগিতা আসেনি তাই আমি নিজ অর্থায়নে নিজ উদ্যেগে থেকে ক্ষতিগ্রহস্তÍদের সর্বাত্মক সহযোগিতা দেওয়া চেষ্টা করতেছি।

বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে এই সব ত্রাণ সামগ্রী বিতরণের এ সময় উপস্থিত ছিলেন বিদ্যানন্দ্ ইউনিয়ন আনসার কমান্ডার আতিকুর রহমান,বিশিষ্ট সমাজে সেবক মোঃ এরশাদুল হক, বিভিন্ন ইলেকট্রনিক্স মিডিয়ার প্রতিনিধিও গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।