ইবি সাংবাদিক নেতৃবৃন্দের সাথে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত: ২:০০ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৮, ২০২১, 259 জন দেখেছেন

ইবি প্রতিনিধিঃ

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে (ইবি) পরিকল্পিত বনায়ন গড়ে তুলতে মাস্টার প্লান তৈরির নিদের্শ ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে পরিকল্পিত বনায়ন গড়ে তুলতে একটি মাস্টার প্লান তৈরির নিদের্শ দিয়েছেন ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. শেখ আবদুস সালাম।

তিনি বলেছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নয়নে অবকাঠামো যেমন গড়ে উঠবে তেমনি সবুজায়নও করতে হবে। এখানে সময়ের প্রয়োজন ও চাহিদা অনুযায়ী উন্নয়ন ও সবুজায়নের একটি যুগপৎ সমন্বয় ঘটাতে হবে। তিনি বলেন, একটি গাছ উঠে গেলে পরিবর্তে তিনটি গাছ রোপণ করতে হবে।

আজ শনিবার (১৮ সেপ্টেম্বর) প্রশাসন ভবনে ভাইস-চ্যান্সেলরের সভাকক্ষে বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মরত সাংবাদিকদের সংঠনগলোর নেতৃবৃন্দের সাথে মতবিনিময় কালে ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. শেখ আবদুস সালাম এ কথা বলেন।
তিনি তৎক্ষনাৎ বিশ্ববিদ্যালয় প্রকৌশল বিভাগকে এ নির্দেশনা দেন। সভায় ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. শেখ আবদুস সালাম উপস্থিত সাংবাদিকদের উদ্দেশ্যে বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে এখন মেগা প্রকল্পের তৃতীয় ফেজের কাজ যেখানে প্রায় পাঁচ হাজার শিক্ষার্থীর আবাসিক সুবিধা সম্বলিত ৫টি আবাসিক হল ও ১টি একাডেমিক ভবন নির্মাণ হবে।

তিনি আরও বলেন, এক্ষেত্রে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রকৌশল বিভাগ ও এ বিষয়ে গঠিত কমিটি বিশ্ববিদ্যালয়ের বিগত সময় ও মেগা প্রজেক্ট প্রতিবেদনে যে মাস্টার প্লান সেটা অনুসরণ করতে হবে। অপ্রয়োজনীয় ও অপরিকল্পিতভাবে গড়ে ওঠা স্থাপনা ও গাছ-গাছারা তুলে ফেলার পর নতুনভাবে বনায়ন কর্মসূচী বাস্তবায়ন করতে হবে। এ জন্য প্রয়োজন হবে একটি পরিকল্পিত বনায়ন পরিকল্পনা যা এই বিশ^বিদ্যালয়ে করা হয়নি। ভাইস-চ্যান্সেলর গাছ-গাছারা কেটে ফেলার পরিবর্তে প্রস্তাবিত এলাকা থেকে প্রয়োজনীয় গাছ স্থানান্তর করার উপর জোর তিনি জানান, বিশ্ববিদ্যালয়ে ২৬০০০ গাছ লাগানো হয়েছে। আরো ৪০০০ গাছ লাগানো চলছে।

এসময় তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ে পরিকল্পিত বনায়ন গড়ে তুলতে একটি মেগা প্রকল্প গ্রহনের জন্য উপস্থিত প্রধান প্রকৌশলী(ভার) মুন্সী শহীদ উদ্দিন মোঃ তারেককে নির্দেশ দেন। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন প্রো-ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোঃ মাহবুবুর রহমান, ট্রেজারার প্রফেসর ড. মোঃ আলমগীর হোসেন ভুঁইয়া, প্রক্টর প্রফেসর ড. মোহাঃ জাহাঙ্গীর হোসেন, জনসংযোগ অফিসের উপ-পরিচালক মোঃ আতাউল হক , উপ-রেজিস্ট্রার ড. আমানুর আমান, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রেসক্লাব, সাংবাদিক সমিতি ও রিপোটার্স ইউনিটির সাংবাদিকবৃন্দ।