জাতীয় প্রেস ক্লাবে “ইসলামী সমাজের” বিশেষ মানববন্ধন

প্রকাশিত: ১২:১৬ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ৫, ২০২০, 484 জন দেখেছেন

নিজস্ব প্রতিবেদনঃ

“সকল প্রকার দুর্নীতি, সন্ত্রাস ও উগ্রতা এবং গুম, খুন, নারী ও শিশু ধর্ষণসহ মানবতা বিরোধী সকল অপরাধ নিমূর্লের লক্ষ্যে এবং ইসলাম ও আল্লাহর রাসূল হযরত মুহাম্মাদ (সাঃ) এর অবমাননা” প্রেক্ষিতে “ইসলামী সমাজ” এর উদ্যোগে আজ— ৩ নভেম্বর ২০২০ ইং, জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনের রাস্তায় সকাল ১১টায়, অনুষ্ঠিত ‘বিশেষ মানববন্ধনে’ সংগঠনের আমীর হযরত সৈয়দ হুমায়ূন কবীর বলেছেন— বিশ্বের প্রতিটি রাষ্ট্রে দীর্ঘকাল পর্যন্ত গণতন্ত্র ও রাজতন্ত্র ইত্যাদি মানব রচিত ব্যবস্থা প্রতিষ্ঠিত থাকায় এবং মানুষ মানুষেরই মনগড়া আইন—বিধানের আনুগত্য করে চলার কারণে দুর্নীতি, সন্ত্রাস, উগ্রতা, গুম, খুন, নারী ও শিশু ধর্ষণ ইত্যাদি মানবতা বিরোধী অপরাধ বাংলাদেশসহ বিশ্বের প্রতিটি রাষ্ট্রে বেড়েই চলছে। পৃথিবীর প্রতিটি রাষ্ট্রই পাপাচারে সয়লাব হয়ে গেছে, যার কারণে— করোনা ভাইরাসের আক্রমণসহ আল্লাহ্ রাব্বুল আলামীনের বিভিন্ন রকম আযাব—গজব মানুষের জীবনে চরম বিপর্যয় সৃষ্টি করেছে।

বিশেষ মানববন্ধনে ইসলামী সমাজের আমীর বলেন, মানব রচিত ব্যবস্থা প্রতিষ্ঠিত থাকার কারণেই ফ্রান্সে রাষ্ট্রীয় পৃষ্টপোষকতায় ইসলাম নিয়ে কটুক্তি এবং আল্লাহ্ রাব্বুল আলামীনের সর্বশেষ নাবী ও রাসূল হযরত মুহাম্মাদ (সাঃ) এর ব্যাঙ্গ চিত্র সম্বলিত কার্টুন প্রদর্শনের মাধ্যমে নৈতিকতা ও মানবতা বিরোধী অপরাধ সংঘটিত হচ্ছে। তিনি বলেন, ইসলাম ও রাসূল (সাঃ) এর অবমাননাসহ সকল প্রকার মানবতা বিরোধী অপরাধ নির্মূলের একমাত্র পথ হচ্ছে আল্লাহর রাসূল হযরত মুহাম্মাদ (সাঃ) এর প্রদর্শিত পদ্ধতিতে সমাজ ও রাষ্ট্রে ইসলাম প্রতিষ্ঠা করা। তিনি আরও বলেন, ইসলাম ও রাসূল (সাঃ) কে নিয়ে কটুক্তি মূলতঃ মুসলিম ও মানবতাবাদীদের অন্তরে চরম আঘাত, যার কারণে বিশ্বের সর্বত্র উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ছে। মানব রচিত ব্যবস্থা মেনে চলার মাধ্যমে মুসলিম পরিচয়দানকারী গণসহ বিশ্বের মানুষ ইসলাম ও রাসূল (সাঃ) এর অবমাননা করেই চলছে— একথার উল্লেখ করে তিনি ফ্রান্সের প্রেসিডেন্টসহ ইসলাম ও রাসূল (সাঃ) এর অবমাননাকারী বিশ্বের সকলকে আল্লাহ্ রাব্বুল আলামীনের আযাব—গজব থেকে বাঁচার লক্ষ্যে মানব রচিত ব্যবস্থা ত্যাগ করে ইসলামের পথে জীবন গড়ার আহ্বান জানান।

ইসলামী সমাজ ঢাকা বিভাগীয় অঞ্চল—২ এর দায়িত্বশীল জনাব মুহাম্মাদ ইয়াছিনের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত বিশেষ মানববন্ধনে আরোও বক্তব্য রাখেন সংগঠনের কেন্দ্রীয় দায়িত্বশীলগণ।
পরিশেষে দেশ ও বিশ্ববাসী সকলের সার্বিক কল্যাণে দোয়া ও মোনাজাতের মাধ্যমে উক্ত মানব বন্ধনের সার্বিক কার্যক্রম সমাপ্ত করা হয়।